ঢাকা, ১৭ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২রা ভাদ্র, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ | ১৯শে মহর্‌রম, ১৪৪৪ হিজরি

হাঁড় কাপানো শীতে কম্বল পেয়ে খুশি তারা।


প্রকাশিত: ৮:৩৮ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২৪, ২০২১
আবু জাহান তালুকদার, সুনামগঞ্জ::

হাঁড় কাপানো শীতে কম্বল পেয়ে খুশি তারা।

প্রচণ্ড শীতের কষ্টে কাতর হামিদা বেগমের মুখে অকৃত্রিম হাসি। সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার শ্রীপুর উত্তর ইউনিয়নের লাকমা এলাকার এ গৃহবধূ গত কয়েক দিনে শীতে বেশ কষ্টে দিন যাপন করছিলেন। অভাবের কারণে তার লেপ বা কম্বল কেনা সম্ভব হচ্ছিল না।
সেখানে নতুন কম্বল হাতে পেয়ে তার খুশি দেখে কে? এমন খুশি বেধে সম্প্রদায়ের জহিরুল ইসলাম ও জাহিদুল ইসলামেরও। কম্বল পেয়ে তারা বলেন, এই শীতে একটি কম্বল কত প্রয়োজন তা একমাত্র শীতে কষ্ট পাওয়া গরিব মানুষ ভালো জানে।
বৃহস্পতিবার বিকালে তাহিরপুর উপজেলার ট্যাকেরঘাট পুলিশ ক্যাম্পে কম্বল নিতে আসা শীতার্তরা এভাবেই তাদের খুশির বর্ণনা দেন।
‘শীতার্ত মানুষের পাশে দাড়াই’ স্লোগানকে সামনে রেখে ট্যাকেরঘাট পুলিশ ক্যাম্পের আইসি খায়রুল আলমের নিজ উদ্যোগে ২০জন অসহায়, দুস্থ ও শীতার্ত মানুষের মাঝে এসব কম্বল বিতরণ করা হয়।
বেধে সম্প্রদায়ের মায়রুন বিবি বলেন, অভাবের তাড়নায় দুই বেলা খেতে পাইনা। শীতের কাপড় কিনব কি করে? তাই ঠাণ্ডার ভয়ে বিকেল হলেই ঘরে দরজা দিয়া থাকি। দম ফেলতে পারিনি। কম্বলডা পাইয়া এখন কিছুডা চিন্তামুক্ত হলাম।
কম্বল বিতরণে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তাহিরপুর উপজেলা পরিষদের ভাইস-চেয়ারম্যান হাজ্বী রিয়াজ উদ্দিন খন্দকার লিটন।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, ইউনিভার্সেল গ্রুপের ম্যানেজিং ডিরেক্টর ইঞ্জিনিয়ার এ.এইচ.এম জুয়েল মাহমুদ, সুনামগঞ্জ জেলা সেচ্ছাসেবকলীগের সহ-সভাপতি মোঃ আবুল খায়ের, তাহিরপুর উপজেলা প্রেসক্লাবের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু জাহান তালুকদার সহ ট্যাকেরঘাট পুলিশ ক্যাম্পের সদস্যবৃন্দ।