স্কুলের শহীদ মিনার পাদদেশে জুতা পায়ে ছবি তুলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট দিলেন প্রধান শিক্ষক

প্রকাশিত: ১১:৪৪ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৩, ২০২০

 নওগাঁ সংবাদাতা:

নওগাঁ রানীনগর উপজেলার আবাদ পুকুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও সভাপতি সহ ছবি তুলে ফেসবুকে পোস্ট দেওয়ায় এক চাঞ্চল্যকর ঘটনার সৃষ্টি হয়েছে।২১ জুন রবিবার সহকারী প্রধান শিক্ষক ও ২২ জুন ল্যাব অ্যাসিস্ট্যান্ট নিয়োগ পরীক্ষা শেষে প্রধান শিক্ষক মোঃ আব্দুস সোবহান নিজ ফেসবুক আইডিতে জুতা পরিহিত শহীদ মিনারের পাদদেশে ছবি তুলে ফেসবুকে পোষ্ট দেওয়ায় এলাকায় মুক্তিযোদ্ধাদের চেতনার বিশ্বাসী মানুষদের মনে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়।উক্ত ঘটনাটি তাৎক্ষণিকভাবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ছড়িয়ে পড়ে। ভাষা শহীদদের স্মরণে জাতীয় শহীদ মিনার সহ দেশের বিভিন্ন স্থানে, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শহীদ মিনার নির্মিত হয়। বাংলাভাষাকে রাষ্ট্র ভাষা মর্যাদা দেওয়ার দাবিতে নাম জানা না জানা অনেকই শহীদ হয়েছেন। ভাষা আন্দোলনের শহীদদের রক্ত বৃথা যায়নি ।তাদের রক্ত দেশবাসীকে শক্তি সাহস ও প্রেরণা দিয়েছে। কিন্তু এ চেতনা আজ পদদলিত। ছবিতে বাম দিক থেকে টুপি পরা প্রথম ব্যক্তি নিয়োগ বোর্ডের এক্সপার্ট, দ্বিতীয় স্থানে অবস্থানকারী আব্দুস সোবহান প্রধান শিক্ষক, তৃতীয় ব্যক্তির নিয়োগ এক্সপার্ট শ্যামপদ মোস্তাফী, চতুর্থ শাহজাহান আলী সদস্য, পঞ্চম উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার, ষষ্ঠ নিয়োগ বোর্ডের এক্সপার্ট, সপ্তম মো আনোয়ার হোসেন নিয়োগ বোর্ডের সভাপতি, অষ্টম হাফিজার রহমান। শহীদ মিনার পাদদেশে জুতা পায়ে সেলফি তুলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেওয়ার কারণে অনেকেই একুশে ফেব্রুয়ারি চেতনা বিরোধী বলে মন্তব্য করেছেন।


Categories