সুনামগঞ্জে আলোর বাহক বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন করুনা সিন্ধু চৌধুরী বাবুল।

প্রকাশিত: ৬:২০ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৩০, ২০২১
আবু জাহান তালুকদার, সুনামগঞ্জ::

সুনামগঞ্জে আলোর বাহক বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন করুনা সিন্ধু চৌধুরী বাবুল।

“শিক্ষার আলোয় মনুষ্যত্ব বিকাশ হোক” এই শ্লোগান নিয়ে বিজয়ের মাসে আলোর বাহক নামে একটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে।
মঙ্গলবার রাত ৮টায় তাহিরপুর উপজেলা ছাত্র কল্যাণ পরিষদ সুনামগঞ্জ সরকারী কলেজ এর উদ্যোগে শহরের বীর মুক্তিযোদ্ধ শহীদ জগৎজ্যোতি পাঠাগার মিলনায়তনে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।
সভায় তাহিরপুর উপজেলা ছাত্র কল্যাণ পরিষদের সভাপতি মো. আলী উজ্জামানের সভাপতিত্বে ও যুগ্ম সাধারন সম্পাদক আমিরুল হাসানের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ও তাহিরপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান করুণা সিন্ধু চৌধুরী বাবুল।
সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হান্নান, বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম, বীর মুক্তিযোদ্ধা উসমান গনি, সুনামগঞ্জ সরকারী এস সি বালিকা বিদ্যালয়ের সিনিয়র সহকারী শিক্ষক মো. আমিনুল ইসলাম, সমবায় অফিসার মাসুক আহমেদ, লেখক ও কলামিষ্ট ইকবাল কাগজী, সংগঠনের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য নুরুল আবেদীন, মাসুক, আমিনুল, শওকত আহমদ, ফারুক আহমদ, মাহমুদুর রহমান, বিশ্বম্ভরপুর উপজেলা ছাত্র কল্যাণ পরিষদের সভাপতি ইমরান হোসেন হিমু প্রমুখ।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে তাহিরপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান করুনা সিন্ধু চৌধুরী বাবুল বলেছেন, বিজয়ের মাসে তাহিরপুরের কলেজ ছাত্ররা আলোর বাহক নামে যে বইটির সংকলন প্রকাশ করেছে তাতে তাদের মেধা বিকাশের প্রতিফলন ঘটেছে। জাতির পিতার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে যে সমৃদ্ধ বাংলাদেশ বির্নিমানে কাজ করে যাচ্ছেন তাতে আজকের ছাত্ররাই আগামীদিনের ক্ষুধা দারিদ্রমুক্ত সমৃদ্ধ এই বাংলদেশের নেতৃত্ব দিবে। তিনি বলেন, স্বাধীনতা পরবর্তী এই দেশকে এক সময় বিশ্বের ধনী দেশগুলো অবহেলা করে বলতেন তলাবিহীন ঝুড়ির এই দেশ।
কিন্তু আজ জাতির পিতার কন্যার ১৩ বছরের শাসনামলে ঐ নিন্দুকেরা বাংলাদেশের উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রাকে অনুসরণ করে বলেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শাসনামল থেকে অনেক কিছু শিক্ষার বিষয় রয়েছে। যে দেশটি তলাবিহীন ঝুড়ির দেশ বলা হতো আজ ১৩ বছরে বিশ্বে একটি উন্নত ও সমৃদ্ধ দেশে পরিণত হয়েছে। আজ দেশের মানুষের মাথাপিচু আয় ২৫শত ডলারে উন্নীত হয়েছে, এইদেশে এখন আর মঙ্গা নেই, কোন মানুষ এখন আর অনাহারে মারা যায়নি। প্রতিটি মানুষের জীবনযাত্রার মান বেড়েছে। তিনি উপস্থিত শিক্ষার্থীদের সঠিক শিক্ষায় মনোনিবেশ করার আহবান জানিয়ে আরো বলেন, এই সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার মানুষ সবচেয়ে বেশী ভাগ্যবান প্রথম হানাদারমুক্ত হয়েছিল এই তাহিরপুর, এখানকার মানুষজন সরকারকে প্রতিবছর বিপুল পরিমান রেমিটেন্স দিয়ে থাকেন, এখানে শাহ আরেফিন শাহর মাজার, অদ্বৈত্য মহাপ্রভূর তীর্থস্নান রয়েছে।
এই জেলায় স্বাধীন বাংলার প্রথম পররাষ্ট্রমন্ত্রী মরহুম আব্দুস সামাদ আজাদ, মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক ও বিশিষ্ঠ পার্লামেন্টারিয়ান প্রয়াত সুরজ্ঞিত সেন গুপ্ত, প্রয়াত কমরেড বরুণ রায়সহ বাউল সম্রাট হাছন রাজা, রাধারমন দত্ত, শাহ আব্দুল করিমের মতো অনেক কৃতিমান মহাপূরুষ যারা বিভিন্নভাবে মুক্তিযুদ্ধ এবং পরবর্তী বিশ্বে সুনামগঞ্জের ভাবমূর্তিকে উজ্জল করেছেন। তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে এবং সহযোগিতায় এই তাহিরপুর উপজেলার রাস্তাঘাট, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান মসজিদ, মন্দির ও গীর্জার উন্নয়নে সবধরনের সহযোগিতার মাধ্যমে একটি উন্নত ও সমৃদ্ধ আধুনিক উপজেলা গঠনে উপজেলাবাসীর সহযোগিতা কামনা করেন।
পরে অতিথিদের নিয়ে আলোর বাহক নামে এই বইটির মোড়ক উন্মোচন করেন তাহিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান করুনা সিন্ধু চৌধুরী বাবুল।

Categories