“সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে পর্যটকদের উপচে পড়া ভিড়: শব্দ দূষণে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী”

প্রকাশিত: ১২:৩৬ অপরাহ্ণ, আগস্ট ৩, ২০২০

আবু জাহান তালুকদার:সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি:

সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে পর্যটকদের উপচে পড়া ভিড়: শব্দ দূষণে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী।

পবিত্র ঈদ-উল- আযহা উপলক্ষে সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার যাদুকাটা নদী, বারেকটিলা, শিমুল বাগান, ট্যাকেরঘাট শহীদ সিরাজ লেক, ট্যাংগুয়ার হাওরসহ সব ক’টি পর্যটন কেন্দ্রে পর্যটকদের উপচে পড়া ভিড়, বাদ্য-বাজনা’র শব্দে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী। তাছাড়াও করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে পর্যটকদের মাঝে নেই কোনো সচেতনতা, মাস্কও ব্যবহার করছে না কেউ।

সরেজমিনে দেখা যায়, ঈদ উপলক্ষে ঈদের দিন থেকেই দেশের বিভিন্ন জেলা-উপজেলা থেকে নৌকাযোগে এসে পর্যটকেরা ভিড় জমিয়েছেন উপজেলার পর্যটন কেন্দ্র গুলোতে। গতকালের তুলনায় আজ প্রচুর পর্যটকদের আনাগোনা দেখা দিয়েছে  পর্যটন কেন্দ্র গুলোতে। পর্যটক নিয়ে কয়েকশো নৌকা ভিড় করেছে ট্যাকেরঘাট শহীদ সিরাজ লেকে। প্রত্যেকটি নৌকাতে রয়েছে উচ্চতর শব্দের বাদ্যযন্ত্র, উচ্চ শব্দে গান-বাজনা বাজানো হচ্ছে, হচ্ছে শব্দ দূষণ এতে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী। এমনকি মুসল্লিরা নামাজও আদায় করতে পারছে শব্দ দূষণের কারণে।

আর শারীরিক দূরত্ব একেবারে নাই বললেই চলে। জটলা বেধে চলছে সবাই, স্বাস্থ্যবিধিও কেউ মানছে না, রয়েছে করোনা বিস্তারের আশংকা। ঝুঁকিতে রয়েছে পুরো উপজেলাবাসী। এ বিষয়ে কঠোর পদক্ষেপ নিতে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন স্থানীয়রা।

তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পদ্মাসন সিংহ জানান, পর্যটকরা যদি এভাবে জটলা বেঁধে ঘুরাফেরা করে, এতে স্থানীয় লোকজনসহ পর্যটকদেরও সমস্যা হবে যদি এদের মাঝে কেউ করোনায় এফেক্ট থাকে। তাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাই উত্তম। উচ্চ সুরে বাদ্য-বাজনা বাজানো যাবে না এবং শব্দ দূষণ রোধে উপজেলার সকল পর্যটন কেন্দ্রে পুলিশ নিয়োজিত রয়েছে।


Categories