“সচেতনতায় সুরক্ষা”  এই শ্লোগানকে সামনে রেখে রাস্তায় “Scout_32”. 

প্রকাশিত: ৩:১৩ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ২২, ২০২০
মোঃ সাইফুল ইসলাম, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।।
গত ৪ মাসে শ্রীমঙ্গল উপজেলায় করোনা সংক্রান্ত স্বাস্থ্যবিধি ও অন্যান্য সরকারি নির্দেশনা নিশ্চিত করতে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে ৪৩২ মামলায় ৯ লাখ ৫২ হাজার টাকা অর্থদণ্ড আদায় করা হয়। এছাড়াও গণবিজ্ঞপ্তি, নোটিশ, মাইকিং, ক্যাম্পেইন ও মোটিভেশনাল বিভিন্ন কর্মসূচি তো আছেই। কিন্তু দুঃখজনক হলো, কৃত কোন কাজেরই ফলাফল দীর্ঘস্থায়ী হচ্ছে না । আর এর একমাত্র কারণ হলো আমাদের আত্মসচেতনতার ঘাটতি মন্তব্য করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। তিনি আরও বলেন, “অন্তত (১)পাবলিক প্লেসে আবশ্যিকভাবে মাস্ক  পরিধান করতে হবে এবং( ২) যথাসম্ভব ভীড় এড়িয়ে চলতে হবে – এই দু’টি বিষয় প্রত্যেক ব্যক্তি পর্যায়ে স্বপ্রণোদিতভাবে প্রতিপালন না করলে করোনা নিয়ন্ত্রণ বা এই সীমাবদ্ধ জীবন-যাপন আরো দীর্ঘায়িত হবে।
  তাছাড়া আসন্ন কুরবানির ঈদ উপলক্ষে স্বাভাবিকভাবেই জনচলাচল অনেক বেড়ে যাবে; স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালন না করলে জনস্বাস্থ্যে করোনার ঝুঁকিও বাড়বে। জনস্বার্থ বিবেচনায় স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালনে জনগণকে উদবুদ্ধকরণ কার্যক্রম আমরা চালিয়ে যাবো। সম্মানিত নাগরিকগণের কর্ণকুহরে এবং হৃদয় কোটরে স্পর্শ করার জন্য এবার আমরা “ননস্টপ”প্রচারণার উদ্যোগ নিয়েছি। “
শ্রীমঙ্গল উপজেলার রোবার এবং স্কাউট এর ৩২ জন সদস্য প্রতিদিন সকাল ১০ টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে  আঞ্চলিক ভাষায় হ্যান্ডমাইকে স্বাস্থ্যবিধি সংক্রান্ত প্রচারণা চালাবে। শ্রীমঙ্গল শহরের ৪ টি এলাকায় বিভক্ত হয়ে নির্ধারিত রোস্টার অনুযায়ী ( প্রতি ২ ঘন্টায় ২ জন) এ কার্যক্রম চলবে।  Scout_32 এর সার্বক্ষণিক তত্ত্বাবধানে থাকবেন ৩২ জন স্কাউট শিক্ষক।
সে সাথে উপজেলা প্রশাসনের মোবাইলকোর্ট অভিযানও যুগপৎভাবে চলমান থাকবে। সকল কার্যক্রমে সর্বস্তরের সকলের সহযোগিতা কামনা করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। তিনি আরও বলেন এই মুহূর্তে আত্মসচেতনতাই সুরক্ষার অন্যতম অস্ত্র।