নাসিমের শারীরিক অবস্থার অবনতি

প্রকাশিত: ১:৪৮ অপরাহ্ণ, জুন ১২, ২০২০
মোহাম্মদ নাসিম- ফাইল ছবি

করোনাভাইরাস ও ব্রেইন স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে ডিপ কোমায় থাকা আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম এমপির শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি হয়েছে। রাজধানীর শ্যামলীর বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন সাবেক এই স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে উন্নত সিঙ্গাপুরে পাঠানোর প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছে তার পরিবার।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ও মোহাম্মদ নাসিমের চিকিৎসায় গঠিত মেডিকেল বোর্ডের প্রধান অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া বৃহস্পতিবার সাংবাদিকদের বলেন, ‘মোহাম্মদ নাসিমের চিকিৎসা চলতে থাকবে। তবে তার অবস্থার আরও অবনতি ঘটেছে।’

তাকে পরিবার বিদেশ নিতে যাচ্ছে, চিকিৎসকরা কী পরামর্শ দিয়েছেন- এমন প্রশ্নের জবাবে ডা. কনক কান্তি বলেন, ‘পরিবারের পক্ষ থেকে যোগাযোগ করা হয়েছে, কিন্তু কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। আর আমাদের পরামর্শ হচ্ছে- তারা (পরিবার) যদি চান, নিতে পারেন। কিন্তু প্রোপার ব্যবস্থা করে নিতে হবে। তার অবস্থা খুবই ক্রিটিক্যাল।’

উন্নত চিকিৎসায় মোহাম্মদ নাসিমকে সিঙ্গাপুরে পাঠানোর বিষয়ে তার ছেলে ও সাবেক এমপি তানভীর শাকিল জয় জানান, তাকে সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজেবেথ হাসপাতালে নেওয়ার জন্য বুধবার সকালেই সেখানে কাগজপত্র পঠানো হয়েছে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সিঙ্গাপুর সরকারের কাছে অনুমতিও চাওয়া হয়েছে। তবে এখনও কোনো ম্যাসেজ আসেনি।

গত ১ জুন গুরুতর অসুস্থ হয়ে বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে ভর্তি হন মোহাম্মদ নাসিম। এরপর পরীক্ষায় তার দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। প্লাজমা থেরাপিতে কিছুটা সুস্থ হলে ৫ জুন তাকে হাসপাতালের আইসিইউ থেকে কেবিনে নেওয়ার কথা ছিল। তবে ওইদিনই ভোরে তার ব্রেইন স্ট্রোক হলে সকালে ওই হাসপাতালেই তার মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচার করা হয়। ৬ জুন অবস্থার আরও অবনতি ঘটায় তাকে ভেন্টিলেশনে রাখার পাশাপাশি ১৩ সদস্যের মেডিকেল বোর্ড গঠন করা হয়। এই বোর্ডের ৭২ ঘণ্টার নিবিড় পর্যবেক্ষণের সময়সীমা পার হওয়ার পর ৯ জুন নতুন করে সাত সদস্যের আরেকটি মেডিকেল বোর্ড গঠন করা হয়। নতুন এই মেডিকেল বোর্ড আরও ৭২ ঘণ্টা তাকে নিবিড় পর্যবেক্ষণের সিদ্ধান্ত জানান।


Categories