কক্সবাজারে বিপুল পরিমাণ নকল স্যানিটাইজার ও এন্টিসেপটিক লিকুইড জব্দ ।

প্রকাশিত: ১০:০০ অপরাহ্ণ, জুন ২৩, ২০২০

আবদুল মান্নান (কক্সবাজার)

কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলা প্রশাসন ও সংশ্লিষ্ট থানার যৌথ অভিযানে বিপুল পরিমান নকল হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও অ্যান্টিসেপটিক লিক্যুইড জব্দ এবং  ১,২০,০০০=(এক লাখ বিশ হাজার)টাকা  জরিমানা ও দোকান সিলগালা করে দেওয়া হয়।

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে হ্যান্ড স্যানিটাইজার এবং অ্যান্টিসেপটিক লিক্যুইডের ব্যাপক চাহিদাকে ঘিরে তৎপর হয়ে উঠেছে একটি অসাধু  চক্র। অধিক মুনাফার আশায় মানহীন এ সকল নকল পণ্য সরবরাহ করা হচ্ছে।

করোনাকালীন বর্তমান সময়ে অ্যান্টিসেপটিক লিক্যুইড ‘স্যাভলনের’ স্বল্পতা প্রায় সর্বত্রই। আর এই সুযোগে হুবহু মোড়কে সামান্য নাম পরিবর্তন করে বাজারে ছাড়া হয়েছে ‘স্যাভরন’।

আজ ২৩ জুন ২০২০ তারিখে চকরিয়া  উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও ভ্রাম্যমান আদালতের বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সৈয়দ শামসুল তাবরীজ ও চকরিয়া থানার যৌথ অভিযানে বিভিন্ন ফার্মেসী ও নিত্যপণ্যের দোকানে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়। উক্ত অভিযানে অবৈধ ৩০ লিটার (২৩০পিচ)হ্যান্ডস্যানিটাইজার ও ৬০লিটার( ৯৪পিচ) নকল পণ্য জব্দ ও জরিমানা আদায় করা হয়।

এছাড়া অবৈধ গাড়ি চলাচল নিয়ন্ত্রণে টমটম, মোটরসাইকেল, সিএনজিসহ  ৮০ টি গাড়ি জব্দ করা হয়। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এই অভিযান চলমান থাকার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। কক্সবাজারে চলমান করোনা ভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি থাকায় আগামী ৩০ জুন পর্যন্ত লকডাউন বর্ধিত করে উপজেলা প্রশাসন।