আওয়ামীলীগ নেতা অধ্যাপক বাবরকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ

প্রকাশিত: ৩:২৫ অপরাহ্ণ, আগস্ট ৬, ২০২০

সিলেট থেকে ৬ আগষ্ট,’২০, ( নিজস্ব প্রতিনিধি) আওয়ামীলীগ নেতা অধ্যাপক বাবরকে উন্নত চিকিৎসার জন্য এয়ার এম্বুলেন্স যোগে বেলা আনুমানিক ২.০০ ঘটিকায় রাজধানীরর ইউনাইটেড হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ জৈন্তাপুর উপজেলা শাখার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, বাকবিশিস সিলেট মহানগর সভাপতি ও জৈন্তাপুর তৈয়ব আলী ডিগ্রী কলেজের সহকারী অধ্যাপক ফয়েজ আহমদ বাবর হূদরোগে আক্রান্ত হয়ে প্রথমে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পরে সিলেট হার্ট ফাউন্ডেশন এর পরে নুরজাহান হাসপাতাল শিলেটে চিকিৎসার মাধ্যমে বাবরের অবস্থার উন্নতি না হওয়ায় ঢাকায় প্রেরণ করা হয়। সিলেটে তিনি সার্বক্ষণিক লাইফ সাপোর্টে ছিলেন। সর্বশেষ বৃহস্পতিবার বেলা আনুমানিক ২.০০ ঘটিকায় ফয়েজ আহমদ বাবর কে নুরজাহান হাসপাতাল থেকে এয়ার এম্বুলেন্স যোগে ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।
পারিবারিক সূত্রে জানা যায় সোমবার সকালে ফয়েজ আহমদ বাবর বুকে ব্যথা নিয়ে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানে চিকিৎসকরা হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানান। পরবর্তীতে উন্নত চিকিৎসার জন্য সোমবার সন্ধ্যায় ফয়েজ আহমদ বাবরকে সিলেট ন্যাশনাল হার্ট ফাউন্ডেশন হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক ইকবাল আমাদের তত্ত্বাবধানে ভর্তি হন। ইকবাল আহমদ এর সাথে আলাপকালে জানান রোগীর অবস্থা সংকটাপন্ন বলে জানান পরে সিলেট শহরের নুরজাহান হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়।
জৈন্তাপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জৈন্তাপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি কামাল আহমেদ, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক মুহিবুর রহমান মেম, উপাধ্যক্ষ শাহেদ আহমদ, দৈনিক জৈন্তা বার্তা পত্রিকার সম্পাদক ফারুক আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক হানিফ মোহাম্মদ ও আব্দুর রাজ্জাক রাজা, উপজেলা বিএনপি নেতা ইন্তাজ আলী, আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য সোহেল রানাসহ উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা অসুস্থতার খবর পেয়ে হাসপাতাল ছুটে আসেন। সোমবার রাতভর নেতাকর্মী ও পরিবার সদস্যরা তাঁর সার্বক্ষণিক চিকিৎসা ব্যবস্থা তদারকি করেছেন।
এদিকে সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন খান চিকিৎসাধীন ফয়েজ আহমদ বাবর এর খোঁজখবর নিয়েছেন। সিলেট জেলা আওয়ামীলীগ ও পরিবারের পক্ষ থেকে ফয়েজ আহমদ বাবর এর আশু রোগ মুক্তি কামনা করে দোয়া চাওয়া হয়েছে।


Categories